বুধবার, ১৬ Jun ২০২১, ০৫:০১ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি....
আপনার প্রতিষ্ঠানের বিশ্বব্যাপী প্রচারের জন্য বিজ্ঞাপণ দিন * আপনার চোখে পড়া অথবা জানা খবরগুলোও আমাদের কাছে গুরুত্বর্পূণ তাই সরাসরি জানাতে ই-মেইল করুনঃ ‍simantabarta@gmail.com * আপনার পাঠানো তথ্যর বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব * সারাদেশে জেলা, উপজেলা, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় ও বিভাগীর পর্যায়ে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে * আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন * মোবাইলঃ 01909088904।
সংবাদ শিরোনাম....
বাংলাদেশ কৃষক লীগের বিভিন্ন অঞ্চলের সাংগঠনিক দায়িত্ব পেল নুরে আলম সিদ্দিকী হক আশুলিয়ায় সবজি ক্ষেতে বস্তাবন্দি লাশ আশুলিয়া গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে দগ্ধ ৬ রাজবাড়ী‌তে মু‌জিববর্ষ উপল‌ক্ষে অসহায়‌দের মা‌ঝে রিক্সা-ভ্যান ও সেলাই মে‌শিন বিতরণ গোয়ালন্দে পদ্মার ধরা পড়লো বিশাল আকৃতির বাঘাইড় আশুলিয়ায় চলন্তবাসে গণধর্ষণ, গ্রেফতার ৬ এবারও এএসআই মোতালেব মুন্সি জেলার শ্রেষ্ঠ ওয়ারেন্ট তামিলকারী অফিসার নির্বাচিত শিশু মুরসালিনকে হত্যা করেছেন দাদা ও চাচাতো ভাই : গ্রেপ্তারের পর হত্যার দায় শিকার রোজিনার মুক্তির দাবিতে ধামরাইয়ে সাংবাদিকদের মানববন্ধন গোয়ালন্দে যুবককে হত্যা করে বালির নিচে পুতে রাখার ঘটনায় ঘাতক গ্রেপ্তার, হত্যাকাণ্ডের দায় স্বীকার
গোয়ালন্দে যুবককে হত্যা করে বালির নিচে পুতে রাখার ঘটনায় ঘাতক গ্রেপ্তার, হত্যাকাণ্ডের দায় স্বীকার

গোয়ালন্দে যুবককে হত্যা করে বালির নিচে পুতে রাখার ঘটনায় ঘাতক গ্রেপ্তার, হত্যাকাণ্ডের দায় স্বীকার

জহুরুল ইসলাম হালিম, রাজবাড়ী//
রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে নিখোঁজের ৩ দিন পর গত ১১ মে মঙ্গলবার দুপুরে নাসির ইসলাম নয়ন (২০) নামে এক যুবকের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। সে উপজেলার উজানচর ইউনিয়নের দুদুখান পাড়ার শাহজাহান শেখের ছেলে।

পাশ্ববর্তী মঙ্গলপুর গ্রামের মশিউর রহমান নামে এক ব্যাক্তির নির্মানাধীন বাড়ির পিছনে বালির নিচে নয়নের লাশ পুতে রেখেছিল ঘাতক।

ঘটনার ৫ দিন পর গত ১৬ মে রবিবার পুলিশ এ হত্যাকান্ডের একমাত্র ঘাতক মানিক হোসেন ওরফে আজমীরকে (১৮) গ্রেপ্তার করে। সে উজানচর ইউনিয়নের দরাপের ডাঙ্গীর হিরু শেখের ছেলে। সে হত্যাকান্ডের দায় স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছে। মঙ্গলবার (১৮ মে) বিকালে এক এজহারের মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেন গোয়ালন্দ ঘাট থানা পুলিশ।

এ হত্যা মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই মুরাদ হোসেন জানান, মানিক হোসেন ওরফে আজমীরকে চর দৌলতদিয়া হামিদ মৃধার হাট এলাকায় তার নানা বাড়ি হতে গ্রেপ্তার করা হয়। সোমবার রাজবাড়ীর চীফ জুডিশিয়াল আদালতের বিচারক সুধাংশু শেখরের আদালতে সে হত্যাকান্ডের দায় স্বীকার করে জবানবন্দি দিয়েছে। এরপর আদালত তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয়।

মানিকের উদ্ধৃতি দিয়ে এসআই মুরাদ আরো জানান, নয়নের সাথে মানিকের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক ছিল। ঘটনার রাতে তারা একসাথে বসে তালের রস (তারি) খায়। এরপর তাদের মধ্যে মাতলামি ভাব আসলে হঠাৎ করেই কথা কাটাকাটি শুরু হয়। এ সময় হাতের কাছে থাকা হাতুরি দিয়ে মানিক নয়নের মাথার পিছন দিকে সজোরে আঘাত করে। এতে সে লুটিয়ে পড়ে এবং কিছুক্ষণ পর মারা যায়। এরপর লাশ গোপন করার জন্য সে একটি কোদাল জেগার করে মশিউর রহমানের বাড়ির পিছনে বালির নিচে পুঁতে রাখে। এ হত্যাকাণ্ডের সাথে সে ছাড়া আর কেউ জড়িত ছিল না বলে আদালতকে জানায়।

সংবাদ টি শেয়ার করুন




©2019 Daily Shimanta Barta. All rights reserved.
Design BY PopularHostBD