রবিবার, ০৯ মে ২০২১, ০৮:২৮ অপরাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি....
আপনার প্রতিষ্ঠানের বিশ্বব্যাপী প্রচারের জন্য বিজ্ঞাপণ দিন * আপনার চোখে পড়া অথবা জানা খবরগুলোও আমাদের কাছে গুরুত্বর্পূণ তাই সরাসরি জানাতে ই-মেইল করুনঃ ‍simantabarta@gmail.com * আপনার পাঠানো তথ্যর বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব * সারাদেশে জেলা, উপজেলা, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় ও বিভাগীর পর্যায়ে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে * আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন * মোবাইলঃ 01909088904।
সংবাদ শিরোনাম....
ঈদুল ফিতর উপলক্ষে রাজবাড়ী জেলাসহ দেশবাসীকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন নুরে আলম সিদ্দিকী হক দৌলতদিয়া বিআইডব্লিউটিসির ফেরির টিকেটের অতিরিক্ত ভাড়া নেওয়ায় ১ কর্মকর্তাকে জরিমানা গোয়ালন্দে দ্বিতীয় বিয়ে করবে বলে ব্লেড দিয়ে স্বামীর গোপনাঙ্গ জখম করলেন স্ত্রী! গোয়ালন্দে উত্তরণ ফাউন্ডেশনের উদ্দ্যোগে পিছিয়ে পড়া তৃতীয় লিঙ্গের মাঝে ঈদ সামগ্রী বিতরণ দৌলতদিয়ায় হেরোইনসহ, গ্রেফতার-৩ গোয়ালন্দ ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে যুগান্তর প্রতিনিধির করা মামলায় গ্রেপ্তার-১ রাজবাড়ী প্রশাসনের পক্ষ হতে স্বাস্থ্য সামগ্রী বিতরণ: স্বাস্থ্যবিধি অমান্য করায় জরিমানা বসন্তপুর মানবিক সংগঠনের উদ্যোগে মাসব্যপী দরিদ্রদের বাড়ী বাড়ী যেয়ে ইফতার পৌছে দেওয়া হচ্ছে বালিয়াকান্দিতে ভোক্তা অধিকারের অভিযানে ৩’শ লিটার টিসিবির তৈল জব্দ ও জরিমানা আদায় গোয়ালন্দে কাজী কেরামত আলী এমপির পক্ষ থেকে ইফতার সামগ্রী বিতরণ
গোয়ালন্দে বিষাক্ত তামাক চাষে ঝুঁকছে কৃষক, বাড়ছে স্বাস্থ্য ঝুঁকি!

গোয়ালন্দে বিষাক্ত তামাক চাষে ঝুঁকছে কৃষক, বাড়ছে স্বাস্থ্য ঝুঁকি!

জহুরুল ইসলাম হালিমঃ
রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলায় দিন দিন বেড়েই চলছে বিষাক্ত তামাকের চাষ। দেশী-বিদেশী সিগারেট কোম্পানি গুলো বেশী মুনাফার লোভ দেখিয়ে তামাক চাষে আগ্রহী করে তুলছে চাষিদের। আর চাষের জন্য অগ্রীম খরচ দেয়ায় তামাক চাষের দিকেও ঝুঁকছে চাষিরা।
উপজেলার উজানচর, ছোটভাকলা, দেবগ্রাম, দৌলতদিয়া ইউনিয়ন এবং পৌরসভায় দিনে দিনে ব্যাপক হারে তামাক চাষ বাড়ছে। এতে জমির উর্বরতা শক্তি নষ্ট হয়ে যাচ্ছে, দীর্ঘদিন তামাক চাষে জমিতে অন্য ফসল চাষ করা কঠিন হয়ে পড়ে। এছাড়া স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর জেনেও তামাক চাষ করছে চাষিরা।
কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সুত্রে জানা গেছে, গোয়ালন্দ উপজেলার পৌরসভাসহ চারটি ইউনিয়নে ২০১৮-১৯ অর্থবছরে ৩ হেক্টর, ২০১৯-২০ অর্থবছরের ৫ হেক্টর এবং ২০২০-২১ অর্থবছরে ৭ হেক্টর আবাদি জমিতে বিষাক্ত তামাক চাষ করা হয়েছে এর মধ্যে উজানচর ইউনিয়নে সবচেয়ে বেশী। এ ছাড়া উপজেলার দূর্গম এলাকা গুলোতেও বর্তমানে কৃষকরা তামাক চাষে ঝুঁকছে।
স্থানীয় তামাক চাষি তালেব খাঁ বলেন, জমিতে খাদ্য শষ্য রোপণ করে লাভবান হতে পারিনি। ক্ষতিকর জেনেও লোকসান দিতে দিতে এক প্রকার বাধ্য হয়েই তামাক চাষ করছি।
আরেক কৃষক আব্দুল খাঁন বলেন, প্রতি বিঘা জমিতে তামাক চাষে বীজ, সার, কীটনাশক ও পরিচর্যাসহ মোট ব্যয় হয় ২৫ থেকে ৩০ হাজার টাকা। এ টাকা সহজ শর্তে ব্যয় করেন সিগারেট কোম্পানি গুলো। দামও ভালো পাওয়া যায়, লোকসানের কোন সম্ভাবনা নেই। এ কারনেই চাষিরা তামাক চাষের দিকে ঝুকছেন বেশী।
গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আসিফ মাহমুদ বলেন, তামাক ও তামাকজাত পণ্য শরীরের জন্য ক্ষতিকর এটা নতুন করে বলার কিছু নেই। তামাক থেকে জর্দা, গুল, বিড়ি, সিগারেটসহ বিভিন্ন ক্ষতিকর পণ্য তৈরী হয়। তামাক প্রক্রিয়াজাতকরণ ও ব্যবহারের ফলে মুখে ক্যান্সার, উচ্চ রক্তচাপ বৃদ্ধি হয়ে ব্রেন স্ট্রোক, হার্ট এ্যাটাক হওয়ার মত ঝুঁকিও থাকে। এছাড়াও যে এলাকায় তামাক চাষ হয়, তার আশেপাশের মানূষেরও শ্বাসকষ্ট, চর্মরোগসহ নানা রোগে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।
গোয়ালন্দ উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা রকিবুল ইসলাম বলেন, তামাক চাষ ক্ষতিকর এটা কম-বেশী সবাই জানে। শুনেছি তামাক চাষিরা সিগারেট কোম্পানির সহযোগিতায় তামাক চাষ করে যাচ্ছে। ক্ষতিকর তামাক চাষে নিরুৎসাহিত করার জন্য আমরা মাঠপর্যায়ে নিয়মিত কাজ করে যাচ্ছি এবং কৃষকদের এর ক্ষতিকর দিকগুলো সম্পর্কে বুঝাচ্ছি। যাতে তারা তামাক চাষ বাদ দিয়ে খাদ্য শষ্য চাষে ফিরে আসেন।

সংবাদ টি শেয়ার করুন




©2019 Daily Shimanta Barta. All rights reserved.
Design BY PopularHostBD